রোমান্টিক কলেজ লাভ স্টোরি গল্প কাহিনী 2021

হ্যালো বন্ধুরা আজ এই সিনিয়র বউ রোমান্টিক বাংলা লাভ স্টোরি ভালোবাসার গল্প কাহিনী তে আপনাদের কলেজ লাভ স্টোরি এর অন্তত ভালোবাসার লাভ স্টোরির কাহিনী গল্প শুনাবো । কলেজে এক মেয়ের সঙ্গে লাভ স্টোরি এর রোমান্টিক ভালোবাসার অ্যাক্টিংকরার জন্য আজকের দুষ্টু মিষ্টি রোমান্টিক ভালোবাসার গল্প শুনতে থাকুন ।

part 1 link কলেজ লাভ স্টোরি

ওকে কিন্তু তোমার নাম্বারটা তো দিয়ে যাও নইলে তুমি কালকে কখন আসবে কলেজে তা আমি কিভাবে জানতে পারব বলো ।

তখন আমি একটা কল দিলাম ভাইয়া টাকে।
হুম নাম্বারটা সেভ করে রাখলাম আর তুমি আমার নাম্বারটাও সেভ করে রাখ ঠিক আছে তো ?

কলেজ লাভ স্টোরি

কলেজ লাভ স্টোরি
কলেজ লাভ স্টোরি

হুম ! সবাইকে বাই বলে আমি কলেজ থেকে বের হয়ে রিকশা নিয়ে সোজা আমার বাসায় চলে আসলাম বাসায় আসার পর শেষ হয়ে বিছানায় শুতেই ভাইয়াটার চেহারা মনে পরতেই আমি হাসলাম ঘন কালো চুল, দেখতে ফর্সা, মুখে হালকা চাপ দাড়ি, হাতের ঘড়ি, ব্লাক কালার জিন্স আরে ওনাকে হিরো দেখাচ্ছিলো । আর মনে মনে ভাবলাম তার সাথে কলেজ লাভ স্টোরি এর এক্টিং করতে অনেকটা ভালো লাগবে । ক্যাশ সে যদি সত্যি সত্যি আমার বয় ফ্রেন্ড হবে ।


আমি ক্লাস না করে আমার গাড়ি দিয়ে আমার বাসায় চলে আসলাম একটা লম্বা শাওয়ার নিয়ে গেঞ্জি পড়ে খাওয়ার শেষে করে টিভি দেখছি ।
সন্ধ্যায় পড়াশোনা করার সময় বারবার ভাইয়াটার কথা মনে পড়ছিল আমার এমন একটা হীরার মতো জামাই থাকলে আর কি লাগবে আমি আবার পড়াশোনায় মন বসালাম ।


অন্যদিকে সমীর ভাবছে আচ্ছা আমি কি ফতেমা কে একটা কল দিতে পারি আমার যে খুব ইচ্ছে করছে তার সাথে একটু কথা বলার জন্য কিন্তু আমি আবার প্রেমে পড়ে গেলাম নাতো ফতেমার ? ফতেমা ওকে আমার কথা ভাবছে উফফ আমি অনেক চিন্তা করছি ফাতেমাকে নিয়ে না একটা কল দিয়ে জিজ্ঞেস করি এখন উনি কি করছে ।


অপরদিকে ফতেমা, পড়াশোনা শেষ করে বারান্দা যে যখনই সমীরের কথা ভাবছিল তার চোখে এখনো হিরো তখনই তার মোবাইলে একটা কল আসলো ।

হ্যালো ফাতেমা আমি সমীর কেমন আছো তুমি?
সমীর ভাই আর গলার কন্ঠ শুনে আমার মনের ভিতর কেমন যেন একটা খুশির কাজ করলো কিন্তু কেন তা আমি জানিনা ।
ফাতেমা তুমি কি আমাকে শুনতে পাচ্ছো।

লাভ স্টোরি


জি হ্যাঁ আমি আপনাকে শুনতে পাচ্ছি আমি আল্লাহ দেয় না ভালো আছি আপনি কেমন আছেন বলেন ?
হুম আমিও ভাল আছি তবে এখন আরো বেশি ভালো লাগছে আমার।
কেন আপনার এখন আরো বেশি ভাল লাগার কারণটা কি বলবেন আমাকে?
তুমি এই কথাটা বলে আমি একেবারে চুপ হয়ে গেলাম ।


অপরদিকে ফাতেমা আমি আসতে করে মুচকি মুচকি হাসলাম।
তুমি কি রাগ করেছো আমার কথা শুনে ফতেমা?
না আমারও ভালো লাগছে আপনার সাথে কথা বলতে?
আচ্ছা তবে কালকে তুমি কখন কলেজে আসবে?
এইতো সকাল নটার দিকে। কেন ?


তোমার জন্য একটা সারপ্রাইজ আছে যে তাই ?
কি সারপ্রাইজ বলেন আমি শুনতে চাই?
সারপ্রাইজ এর কথা গোপন না থাকলে সারপ্রাইজ হলো কিভাবে হুম বলেন?
ও আমি একটা কথা বলতে পারি আপনাকে?
হ্যাঁ অবশ্যই বল কি বলতে চাও তুমি আমাকে?
আপনার গলার কন্ঠটা টা অনেক সুন্দর।


তাই নাকি থ্যাংকস তোমাকে তোমার গলার কন্ঠটা ও খুব মিষ্টি ।
আপনাকে অনেক ধন্যবাদ । আচ্ছা এখন রাখি তবে।
গুড নাইট তবে তাড়াতাড়ি এখন ঘুমিয়ে পড়ো ।
হুম ! আপনি না বেশি দেরি করবেন না ঘুমিয়ে পড়েন ?

বাংলা লাভ স্টোরি


ওকে ! আর হে আমাকে তুমি করে বলবা এবং ভাইয়া না আমার নাম ধরে ডাকবা । বাই ।
আমি কি করে বলব কিন্তু আপনি তো আমার থেকে বয়সে অনেক বড় তাই না।
তাতে কি হয়েছে প্লিজ আমার কথাটা রাখো।


আমি ওনাকে বাই বলে কলটা কেটে দেওয়ার পর আমি বিছানায় ঘুমানোর চেষ্টা করছি আমি । কিন্তু আমার কিছুতেই ঘুম আসছে না ।
এইভাবে দেখতেছে সকাল হয়ে গেল ঘুম থেকে উঠে ফ্রেশ হয়ে রেডি হয়ে বের করে নিলাম তারপর কলেজে যে আমার বন্ধু বান্ধবদের বললাম আজকে আমি আমার গার্লফ্রেন্ডকে বলতে গেলে তোদের হবু ভাবি কে দেখাবো ।

আমার ফ্রেন্ডরা আমার কথা শুনে হেসে উঠল আমি মনে মনে বললাম দাঁড়াও একবার সুলতানা কে আসতে দাও । তারপর আমি দেখাবো তোমাদের মুখে এই হাসি কোথায় যাই বাপু ?


আমি কলেজে আসার পরে ক্লাসে গিয়ে ক্লাশ করছিলাম । আজকের বিষয়টা ছিল একেবারে কলেজ লাভ স্টোরি নিয়ে নিয়ে ও পড়তে খুব মজা লাগলো । তারপর আমার এক ফ্রেন্ড আমাকে বলল দরজার দিকে তাকিয়ে দেখ একজন তোকে ডাকছে আমি তাকিয়ে দেখলাম সমীর আছে।
ফাতেমাকে আমি ইশারা করে ডাকছি যাতে সে ক্লাস থেকে বেরিয়ে আসতে পারে !

রোমান্টিক লাভ স্টোরি


আমি পিছনের বেঞ্চে বসে ছিলাম আমার ফ্রেন্ডের সাথে তাই টিচার আমাকে খেয়াল না করায় । আমি তাকে ইশারা দিয়া হাত নাড়িয়ে বললাম আমি আসছি দারাও। আমার ফ্রেন্ড আমাকে জিজ্ঞেস করল যে কে আমার ! আমি আমার ফ্রেন্ডকে বললাম আমাদের সিনিয়র ভাইয়া তার নাম সমীর আমার ফ্রেন্ড আমাকে আর কিছুই জিজ্ঞেস করলো না । আমি আমার ফ্রেন্ডকে বললাম ক্লাসের নোট গুলো তুলে রাখতে আমি পরবর্তী ক্লাসে জয়েন করব আমার ফ্রেন্ড আমাকে আচ্ছা বলে । ম্যাডাম যখন চক নিতে বোডের দিকে লেখার জন্য তাকালো অমনি আমি ক্লাস থেকে চলে আসলাম সমীরের কাছে ।

তখন সমীরকে বললাম কি হয়েছে? তখন আমি ফতেমার হাতটা ধরে কলেজের বাইরে নিয়ে গিয়ে আমার ফ্রেন্ডের সাথে পরিচয় করিয়ে দিলাম । যে ফতেমা হলো এখন থেকে আমার গার্লফ্রেন্ড । সবাই ফাতেমার দিকে তাকিয়ে জিজ্ঞেস করল তুমি কি সমীর কে চিনো ?আমি তাদেরকে হ্যাঁ বলে তারা সমির এর দিকে তাকিয়ে বলল কংগ্রাচুলেশন বন্ধু এখন আমাদের ট্রিট দে তাহলে ?


আমি আমার ফ্রেন্ডকে বললাম ধন্যবাদ তোদেরকে আর কি দেব আগে তোদের সামনে ফাতেমাকে আমাকে প্রপোজ তো করতে দে ? আমার ফ্রেন্ডরা তখন আমাকে জিজ্ঞেস করল কী বলিস তুই না এইমাত্র বললি যে তোর গার্লফ্রেন্ড ফতেমা আমি আমার ফ্রেন্ডকে সবার সব কথা খুলে বললাম আর ফতেমার দিকে তাকিয়ে বললাম ফতেমা এইটা কোন নাটক না এখন আমি সত্যি করে বলছি । আমি তোমাকে ভালোবাসি তারপর ফাতেমার সামনে হাঁটু গেড়ে বসে তাকে জিজ্ঞাসা করে বললাম ইউ আর মেরি মি ফতেমা ???


তখন আমি সমীরকে উঠে দাঁড়াতে বলে সে উঠে দাঁড়াল আমি তাকে বললাম আর বললাম তবে আগে আমি আমার কলেজের লাইফ চেঞ্জ করতে চাই তারপরে আমাদের কলেজের লাভ স্টোরি শেষ করবো ।
আমি কিছু না ভেবে তখন ফাতেমাকে হ্যাঁ বলে দিলে আমার ফ্রেন্ডরা সবাই হাতে তালি দিলো ।


তখন আমি সমীর ও তার ফ্রেন্দের বাই বলে আবার আমার ক্লাসে চলে গেলাম । ক্লাস শেষ হলে সমীরের সাথে কিছুক্ষণ কথা বলে তারপর আমার বাসায় এসে ফ্রেশ হয়ে দুপুরের খাবার খেয়ে ঘুমিয়ে পড়লাম।

রোমান্টিক লাভ স্টোরি গল্প


এভাবে দেখতে দেখতে আমাদের কলেজ লাভ স্টোরি এর প্রায় তিন বছর কেটে গেল । আমি এখন অনার্স এর ফার্স্ট ইয়ারের শেষের দিকে আর ফতেমা কলেজ লাইফ শেষ হয়েছে ও ভার্সিটিতে ভর্তি হওয়ার প্রিপারেশন নিচ্ছি ।

এমনসময় আমি আমার বাবা-মাকে আমাদের সম্পর্কের কথা জানালাম তারা রাজি ছিল না কারন আমি এখনো আমার নিজের দায়িত্বে নিতে শিখে নি । তারপরেও আমি আমার মা বাবাকে মানালাম । এই বলে যে আমি আর আমার অয়াইফ একসাথে পড়াশোনা করব । আমার বাবা-মা আমাকে জিজ্ঞেস করলো তাহলে সংসারে কাজ করবে কে । তখন আমার বাবা মাকে বললাম ফতেমা পারবে তার পড়াশোনার পাশাপাশি সংসার সামলাতে তারা অবশেষে রাজী হয়ে গেল ।

সমীর আমাকে কল করে সব কথা বলল তখন আমিও সমীরের কথায় একমত হয়ে বললাম হ্যাঁ আমি পারবো আমার পড়াশোনার পাশাপাশি আমার সংসার সামলাতে ।
আমি ফাতেমার পারমিশন নিয়ে ফাতেমার বাসায় আমার বাবা-মা কে নিয়ে আসলাম আমাদের প্রস্তাব পাঠাতে ।

কষ্টের লাভ স্টোরি


আব্বু আম্মু সমীরের আব্বু আম্মুকে বলল যে আমার বাবা-মা আমাকে রিক্সে ফেলতে চাই না । কারণ আমি ছোটবেলা থেকেই আদরে বড় হয়েছি । আব্বু আম্মু রাজী না হলে তার হাত জোড় করে আমার বাবা-মার সামনে রিকোয়েস্ট করতে সমীর এর বাবা মা সমীরের কথা ভেবে আমার বাবা-মার কাছে বলল । আপনার মেয়েকে আমরা আমাদের মেয়ের মত করে রাখবো আপনার কোন চিন্তা করবেন না । আপনার মা-বাবা রাজি হল আমাদের বিয়ে দিতে কিন্তু ছেলে যেহেতু এখনো পড়াশোনা করছে তাই আমার বাবা-মার কথা আমাকেও তাদের পড়াশোনা করতে দিতে হবে । আর তার আর আমার বাবা মার কথায় সম্মতি জানালে বিয়ের তারিখ ঠিক করা হলো ।


আলহামদুলিল্লাহ আমাদের বিয়ে এই মাসের সোমবার ?
বিয়ে সম্পন্ন হয়ে গেল আমাকে সমীর ঘরে নিয়ে যাওয়া হলো।
তখন আমি সমীরকে বললাম তাহলে আজ আমাদের কলেজ লাভ স্টোরি টা সম্পূর্ণ হলো কি বল ।
আমি ফাতেমার কাছে যেতেই সি একটু সরে বসল ।

আমি সমীর কে বললাম আজকে আমাদের বাসর রাত ঠিক কিন্তু আমাদের ক্যারিয়ার ঠিক রাখতে হলে আমাদের নিজেকে কন্ট্রোল এর মধ্যে রাখতে হবে ।
হুম তা জানি কিন্তু রোমান্টিক লাভ স্টোরি গল্প কি আমরা করতে পারি ।


আমি তখন একটু লজ্জা পেয়ে মাথা নাড়িয়ে তাকে বললাম আমরা অবশ্যই করতে পারি ।
তখন আমি হতে পারে হাত ধরে তাকে আমার কাছে এনে জড়িয়ে ধরলাম তুমি আর আমি আর কেউ নেই আমাদের রুমে আমার জন্য আজকের রাতটা অনেক, অনেক, অনেক স্পেশাল । প্রথম যখন তোমাকে দেখি তখন থেকে আমি ভেবে রেখেছি আমি তোমাকে আমার বানাবোই আর দেখো আলাহমদুলিল্লাহ আজ থেকে তুমি শুধু আমারই ।
আলাহমদুলিল্লাহ তুমিও আজকের থেকে শুধু আমার ।

লাভ স্টোরি ফিল্ম

আমি একটু মুচকি হাসে ফাতেমাকে আমার কাছে ঘুরিয়ে আলতো করে তার কপালে একটা কিস দিয়ে । তার ঠোঁটে আমার ঠোঁট ডুবিয়ে দিলাম এই ভাবে আমি আর ফাতেমা কিছুক্ষণ থাকার পর ফাতেমাকে ছেড়ে দিয়ে তাকে বললাম । আমার ফাতেমা রানী তুমি এখন শুয়ে পড়ো আর আমার ফাতেমা রানী শুয়ে পড়লো আমি ও তার পাশে শুয়ে পড়লাম । দুজন দুজনকে জড়িয়ে ধরে ঘুমিয়ে পরলাম । বউকে জড়িয়ে ধরে ঘুমানোর মধ্যে একটা আলাদাই মজা আছে কি বলেন আপনারা ।


আজকের মত এখানেই তো আমাদের এই কলেজ লাভ স্টোরি গল্পটি আপনাদের কেমন লেগেছে অবশ্যই নিচে কমেন্ট করে জানাবে আর আমাদের সাইটে যদি প্রথম হয়ে থাকে অবশ্যই ফলো করবেন আমাদের সাইটটি কে ।

গল্প টি ভালো লাগলে অবশ্যই শেয়ার করবেন

Leave a Comment